সেন্সলেস হয়ে পড়েন একের পর এক শিক্ষার্থী! | Tejgaon Govt. High School | Dhaka News | School Student

#TejgaonGovtHighSchool #DhakaNews #SchoolStudent #somoynews #somoytv

Content Declaration:
========= This content is for news purpose. There may be some disturbing scene which we use for the story demand.

আরও বিস্তারিত জানতে ভিজিট করুন: https://www.somoynews.tv

Fair Use Disclaimer:
=================
This channel may use some copyrighted materials without specific authorization of the owner but contents used here falls under the “Fair Use” as described in The Copyright Act 2000 Law No. 28 of the year 2000 of Bangladesh under Chapter 6, Section 36 and Chapter 13 Section 72. According to that law allowance is made for “fair use” for purposes such as criticism, comment, news reporting, teaching, scholarship, and research. Fair use is a use permitted by copyright statute that might otherwise be infringing. Non-profit, educational or personal use tips the balance in favor of fair use.

“Copyright Disclaimer Under Section 107 of the Copyright Act 1976, allowance is made for -fair use- for purposes such as criticism, comment, news reporting, teaching, scholarship, and research. Fair use is a use permitted by copyright statute that might otherwise be infringing. Non-profit, educational or personal use tips the balance in favor of fair use.”

About SOMOY TV:
===============
SOMOY TV is the Bangladesh Government Approved 24/7 News Based TV Channel, Where we makes all the news contents and program materials with the own team or employees.
Somoy TV has the sole rights of all contents and it does not give permission to any business entity or individual to use these contents except SOMOY TV (SOMOY Media Limited).
According to TRP (Television Rating Point), it is the most popular news channel in Bangladesh from 2013.

“SOMOY TV” is the Most Reliable News Source and Leading 24/7 News Based TV Channel in Bangladesh

====================
Somoy TV has the sole rights of all contents and it does not give permission to any business entity or individual to use these contents except ‍SOMOY TV (SOMOY Media Limited).

This Channel is Based on News and Current Affairs. The uploaded all contents are Made by our own team. Also Sometimes We are using some Third-Party materials where we have the specific authorization and permission to use this on YouTube.

Stay Connected with us:
====================
“SOMOY TV (Somoy Media Limited)” is the Leading 24/7 News Based TV Channel in Bangladesh.

Website: http://www.somoynews.tv
YouTube: http://www.youtube.com/somoytvnetupdate
Facebook: http://www.facebook.com/somoynews.tv
Twitter: http://www.twitter.com/somoytv

You might be interested in

Comment (291)

  1. আরে মিয়া আগে যখন স্কুলে বিদূৎই লাইন ছিলোনা তখন কি ছাত্র ছাত্রী পড়ে নি স্কুলে। যত সব আজনবী খবর।

  2. যখন বিদ্যুৎ ছিলো না তখন নিশ্চয় পড়াশোনা হয়নি।
    মানে ১৮০০-১৯০০ সালে কেউ বই স্কুল কলেজ চোখে ই দেখে নি।
    ফার্মের মুরগি সব। এরাই জাতির ভবিষ্যত 🤣🤣

  3. এটা কেমন স্কুলের শিক্ষক,যে আটকে রেখেছে ঘরের ভিতরে তাও আবার বিদ্যুৎ নেই তাহলে এই গরমে অসুস্থ হয়ে পড়বে সাভাবিক,,কারন তারা মেয়ে কাপড় থাকে তাদের গায়ে,, ছেলেদের মতো তো কাপড় খুলে বসতে পারে না,,,এই প্রচন্ড গরমে অসুস্থ হয়ে যাওয়াই কথা ,,,এমন করা মোটেও উচিৎ হয়নি

  4. উন্নয়নের ঠেলা সামলাচ্ছে জাতি। বিচার বহির্ভূত এক রাষ্ট্র পরিচালনা করছে আওয়ামী সরকার।

  5. এই শিক্ষকদের কঠোর শাস্তি দেয়া হোক। ক্লাসে আটকে রাখার অধিকার কে দিয়েছে

  6. এটা বিশাল সমস্যা ডিহাইড্রেশন হলে বাঁচার আশা খুবই কম থাকে
    তবে এতো বড়ো কিছু হয়ে গেছে আর পাবলিক স্কুল কর্তৃপক্ষ কে ছেড়ে দিলো
    খুবই লজ্জার বিষয় আমাদের
    আর এই একটি মেয়ে মারা গেলে কে দায়ী নেবে

  7. আপনাদের কয়েকঘন্টা বিদ্যুৎ না থাকায় এই অবস্থা আর আমরা প্রবাসীরা দৈনিক 10 ঘন্টা রোদ্রের মধ্যে কাজ করতে হয় বাহিরে কোন বিদ্যুতের ব্যবস্থা নাই

  8. এই সাইজের মেয়েরা কিভাবে বাচ্চা বা শিশু হয় — আমার মাথায় আসলোনা – ডাঃ কি বললো এগুলা– আবার পাঠানো হইছে শিশু হসপিটালেও

  9. সকাল ৯টা থেকে ২.২৫ পযন্ত ক্লাস হয় তাও আবার কলেজে।
    তারপর কলেজে একদিন না গেলে ব্যাত দিয়ে মারা হয়।
    অতিরিক্ত বেতন নেয় ৮০০-৯০০ টাকা করে।
    কলেজে একবার প্রবেশ করলে আর বের হতে দেয়া হয়না।

  10. ওদেরকে খেলা দেখতে না দেওয়ার কারণে ওরা ভালো অভিনয় করে শিক্ষক দেরকে ফাঁসিয়ে দিতে চেয়েছে 😂😂😂
    আগের পড়ালেখা আর এখনকার পড়ালেখা রাত আর দিনের পার্থক্য

  11. বিদ্যুৎ না থাকলে বিদ্যালয় ছুটি দিয়ে দিলে ভালো হয়। ইউনিফর্ম পরা অবস্থায় অনেক কষ্ট হয় -ছাত্রীদের।

  12. আমাদের ২০২০ এর দিকে ক্লাসে কারেন্ট চলে গেছিল । ভদ্রতার খাতিরে শিক্ষকদের সামনে নিশ্চুপ থাকার ও ভদ্রভাবে বসতে হয় , আমার হাঁসফাঁস হচ্ছিলো দেখে স্যার আমাকে সুযোগ দিয়েছিলো শেষের দিকে বেঞ্জ গুলোতে বসতে ও জোরে জোরে নিশ্বাস ফেলা ,আরামে শরীর ছেড়ে দিয়ে ক্লাস করার জন্য । কয়েকবার জিজ্ঞেস ও করেছিলো খুব বেশি কষ্ট হচ্ছে কিনা । এই নিউজের ঘটনার দেখার পর বুঝলাম অন্যান্য শিক্ষকদের তুলনায় আমাদের শিক্ষক আসলেই আমাদের ব্যাপারে অনেক কেয়ারিং ছিল। যেসব শিক্ষক মানবিকতা ভুলে গেছেন সেসব শিক্ষকদের অনুরোধ করবো তারা যেন আমাদের স্যার এর মতো শিক্ষার্থীদের একটু মানবিকতা দেখান ।

  13. দুনিয়ার লোডশেডিংয়ের যদি এই অবস্থা হয় আমাদের তাহলে কবরের কি অবস্থা হবে আমাদের

  14. ক্লাস করার পর টিফিনে বের হতে দেয় নাই বিধায় আর লোডশেডিং এ হয়তো অসুস্থ হয়েছে, আর মহিলা কলেজে বিজ্ঞান কলেজের ছাত্রদের খেলা এটা ঠিক ?

  15. উনাদের ২০ মিনিটে এরকম অনেক অবস্থা গ্রামেতো দুপুরের পর ঘন্টার পর ঘন্টা বিদুৎ থাকেনা৷

  16. অতি আল্লাদে বড় করলে যা হয় আরকি। এমন স্কুলে পড়াশোনা করেছি যেখানে কোন বিদ্যুৎই ছিলনা। কই আমরা তো অসুস্থ হয়নি। বয়লার মুরগি হলে যা হয় আরকি ..😂😂

  17. অনেক শিক্ষক মনে করেন লেখাপড়া বিষয়টা একটা ট্যাবলেট যা জোরপূর্বক খাওয়াতে চান কিছু শিক্ষক মহল

  18. এইমাত্র এক দেড় ঘন্টায় যদি এত মানুষ সেন্স লেন্স হয়ে যায় ২ ঘণ্টার গরম সহ্য করতে পারে না মাদ্রাসার ছেলেরা সারারাত্র কারণ ছাড়া কাটিয়ে দেয়, তারপর জাহান্নামের আজাব সহ্য করবা কিভাবে।

  19. কথায় কথায় শিক্ষকদের শাস্তি এটা কেমন কথা। শিক্ষকরা তো তাহলে কোন ডিসিপ্লিন মেন্টেনই করতে পারবেনা। মানুষ কত পরিশ্রম করছে আর এরা একটু কারেন্ট চলে গেলে সেন্সলেস হয়ে যায়

  20. ইদানিং কিছু শিক্ষক অতিরিক্ত শিক্ষিত হওয়ায় মানসিক ভারসম্য হারাচ্ছে নিজেরাই

  21. আমি তেজগাঁও সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের একজন শিক্ষার্থী,বয়েজ স্কুল এবং গার্লস স্কুল পাশাপাশি,তবে যাই হোক- ক্লাস চলাকালীন অথবা ক্লাস না থাকলেও লোডশেডিং হলে আমাদেরকে এভাবেই ক্লাসে রাখা হয় আটকে…! যার ফলে অনেক ক্লান্তি বোধ হয় এবং অনেকেই অসুস্থ হয়ে পড়েন এর একটি দ্রুত পরামর্শ চাচ্ছি.. আমাদের সকলের পক্ষ থেকে বিশেষভাবে অনুরোধ যে সব ক্লাসগুলো বড় এবং পর্যাপ্ত পরিমাণে আলো বাতাস থাকে সেইসব ক্লাস গুলোতে শিক্ষা কার্যক্রম চালানোর জন্য..!

  22. আমি নিজে এই স্কুলের শিক্ষার্থী ছিলাম। এই স্কুলের শিক্ষকরা দুনিয়া উল্টে যাক কোন শিক্ষার্থীদের এক বিন্দু ছাড় দেয় না। এজন্য যদি তাদের মৃত্যু হয় তারপরও স্কুল কর্তৃপক্ষের কিছু যায় আসে না। এমন বর্বর স্কুল আমি জীবনে খুব কমই দেখেছি।

  23. এগুলা শিক্ষার্থী নাকি বয়লার মুরগী🤣🤣
    এটুক গরমে কাহিল,,, ননীর পুতুল

  24. সরকার তো স্কুলের সময় আরও বাড়িয়েদিয়েছে। আমি বলবো সরকার কে আরও একটু চিন্তা করারজন্য।

  25. তোমার তো ভাবতেই ভয় হয় যে এই বিদ্যুৎ না থাকলে আমরা গরমে থাকতে পারছি না না জানি আল্লাহ কবরে আমাদের কিভাবে থাকতে হবে আল্লাহ তুমি আমাদের মাফ করো নামাজ পড়তে হবে

  26. শেরপুর জেলা শহরের প্রাইভেট শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোর বেশিরভাগই শনিবার বন্ধের সরকারি নির্দেশনা অমান্য করছে। এগুলোর ব্যাপারে রিপোর্ট করুন।

  27. মেয়েদের স্কুলে ছেলেদের খেলার আয়োজন করা অন্যায় তাদের সবাইকে শাস্থির আওতায় আনা হোক ৷ এখানে মেয়েরা মেয়েদের স্কুলের মাঠে খেলাধূলা করলে এমনটা হতো না ৷ কেনো কার অনুমতি নিয়ে খেলার আয়োজন করা হয়েছে?

  28. শনিবার স্কুল-কলেজ বন্ধ রাখা হয়েছে।কিন্তু বাকি পাঁচ দিন আর নতুন করে ক্লাস যোগ করা হয়েছে একটি করে। 😪😪তাহলে লাভটা কি????

  29. একদিন ছুটি দিয়ে এমন এক অবস্থা করছে😑.. এত গুলো ক্লাস না বাসার পড়াই মন বসে আর না কলেজের । একদিকে গরম আরেক দিকে ৫০ মিনিট করে ক্লাস । আমাদের উপর এত নির্যাতন না করে একটু দয়া করলে কি এমন ক্ষতি হবে🙂!

  30. কি অবস্থা ভাই বুঝি না একে লোডশেডিং তা উপরে ৪ টা পর্যন্ত ক্লাস😢😢😢😢
    তীব্র নিন্দা জানাই😢

  31. এই গরমে জুতামুজা পরে থাকা খুবই কষ্ট।খেলা হলে স্কুল ছুটি দিয়ে দিবে শিক্ষক রা।

  32. এত গরমে কারেন্ট নেওয়া উচিত নয়। কিন্তু গরীবদের দুঃখ মন্ত্রী মিনিস্টার রা কিভাবে বুঝবেন।কারন তারা তো এছির মধ্যে থাকেন।

  33. দিপু মনি আপনি কৈ।।এতো বিদ্যুৎ সাশ্রয় করে কৈ রাখবেন।।খালি একটা বাচ্চা ভরে যাক তখন বুঝবেন আপনার বিদ্যুৎ আপনার অবস্থান কৈ যায়।

  34. দূষিত পরিবেশ বাতাসের জন‍্য এখন গরমও সহ‍্য হয়না অথচ এই গরমের মধ্যেই আগে
    আমরা কত স্কুলের মাঠে খেলেছি কারণ তখন বিশুদ্ধ বাতাস পরিবেশ ছিল😢

  35. এসব গরু ছাগলগুলো টিচার হয় কেমনে?লম্বা সময় ইলেকট্রিসিটি না থাকলে তাদের আটকায় রাখার কারণ কি!আর ক্লাস চলাকালীন মাঠে অন্য স্কুলের খেলাও বা হয় কেমনে?
    সহকারী শিক্ষিকার কথা শুনে মন চাচ্ছে নিজে গিয়া কিছুক্ষন থাপড়ায় উনারে।।

  36. এতো দীর্ঘ সময় ক্লাস করানোর কোন মানে হয়না।আর ইউনিফর্ম পরে মোজা জুতা পরে কতো সময় থাকা যায়, তাতে কারেন্ট থাকলেও।স্কুলের সময় কমানো দরকার। আর প্রতিটি স্কুলে ২ সিফট চালু করা উচিৎ। এতো সময় পড়াশোনা করলে রেস্ট কোথায় ওদের বা শিক্ষকদের।

  37. সব শিক্ষক এক।ক্লাসে এসেই পাখা অফ করে দেয়।ওনারা বুঝেই না যে একসাথে এতজন বসলে যে কত গরম করে।😡

  38. মূর্খের জগতে বাস।যারা লোডশেডিং করছে তাদের দোষ নাই,, শিক্ষকের দোষ। এটা সহজ তাই না।

  39. টিচাৱ বললো মাঝে মাঝে এই বাচ্চাটা অসুস্থ হয়ে পৱে। অৰ্থাৎ হতে পাৱে পেনিক, অথবা সে ভীতু, হাৰ্ট বিট অতি মাত্ৰায় বেৱে যাওয়া , প্যালপিটিসন হওয়া। আমাৰ প্ৰশ্ন , জানা সত্ত্বেও কেন এই বাচ্চাটিকে আক্সিজেন শূন্য হয়ে যাওয়া ঘৱে আটকে ৱাখা হলো। অনেকগুলো বাচ্চা, তাৱ উপৱ কাৱেন্ট নেই।
    তাৰ তো পেনিক তখনই শুৱু হয়ে গেছে যখন বাহিৱ থেকে ৱুম আটকে দেওয়া হয়েছে। তাৱপৱ গৱম ও কাৱেন্ট নেই। এই বাচাচাৱ যদি কিছু হয় বা হয়ে যেত। এই ভাৱ কে নিত ?পিতা মাতা ? কেন ? তাৱা তো তাৱ সন্তানেৱ সাথে এমন কৱেন না, তাহলে কেন তাৱা সন্তানেৱ যন্ত্ৰনাৱ ভাৱ বহন কৱবেন ? দেশেৱ সকল স্তৱেৱ জনগণ এমন অবিবেচক স্বৈৱাচাৱী, নিষ্ঠুৰ, নিৰ্দয় প্ৰাণঘাতিক শিক্ষক নামেৱ ডাকাতেৱ দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি চাই। আৱো চায় গুমোট গৱম ঘৱে ,কাৱেন্ট ছাড়া প্ৰচন্ড ভীৱেৱ মাঝে তাকেও তালা বদ্ধ অবস্থায় কয়েক ঘন্টা ৰাখা হোক।
    প্ৰাধান শিক্ষককেও জবাবদিহিতাৱ আওতায় এনে জৱিমানা কৱতে হবে। তবেই জনগন সঠিক বিচাৰ পাবে। আমীন।

  40. আমরা যেন শিক্ষার্থী না,কলুর বলদ সেই সকাল থেকে ৩ টা পর্যন্ত ৫০ মিনিটের ক্লাস👏👏

  41. আমাদের স্কুলেও ঠিক এমনটা করা হয় ছাত্রছাত্রীদের সঙ্গে। সকাল সাড়ে সাতটা থেকে বিকাল সাড়ে চারটা পর্যন্ত ক্লাস করানো হয়। অনেকেই সেন্সলেস হয়ে যায়। তবে এতে কর্তৃপক্ষের কোন যায় আসে না। আমাদের স্কুলের নাম ঝিকরগাছা বদরউদ্দিন মুসলিম হাই স্কুল। আমি চাই এখানকার শিক্ষকদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হোক

  42. আমার ১০ বছরের ছেলে বলে ইস্কুলে প্রায় কারেন্ট থাকেনা তখন আমাদের নিশাস নিতে অনেক কষ্ট হয়।

  43. আমি মনে করি এটা শিক্ষকের দোষ নয়। কারণ যদি অসময়ে ছুটি দেয় তাহলে মেয়েরা কোথাও গিয়ে দুর্ঘটনা ঘটলে সেটাও শিক্ষকের দায় হতো। আর এটাতো শিক্ষক নুঝে করেন নি।

  44. এই হলো আমাদের দেশের শিক্ষক,বাংলাদেশের বেশির ভগ শিক্ষকরা ভলো না অনেক অনেক খারাপ

  45. দুপুর ২ টার পরে ছাত্র ছাত্রীদের আর ক্লাসের এনার্জি থাকে না, বিষয়টি নিয়েসরকারের শিক্ষা বিভাগের ভেবে দেখা দরকার।

LEAVE YOUR COMMENT

Your email address will not be published.